Nirjonmela Desi Forum

Talk about the things that matter to you! Wanting to join the rest of our members? Feel free to sign up today and gain full access!

  • অত্যন্ত দু:খের সাথে নির্জনমেলা পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো যাচ্ছে যে, কিছু অসাধু ব্যক্তি নির্জনমেলার অগ্রযাত্রায় প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে পূর্বের সকল ডাটাবেজ ধ্বংস করে দিয়েছে যা ফোরাম জগতে অত্যন্ত বিরল ঘটনা। সকল প্রকার প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা রাখা সত্বেও তারা এরকম ধ্বংসাত্মক কর্মকান্ড সংঘটিত করেছে। তাই আমরা আবার নুতনভাবে সবকিছু শুরু করছি। আশা করছি, যে সকল সদস্যবৃন্দ পূর্বেও আমাদের সাথে ছিলেন, তারা ভবিষ্যতেও আমাদের সাথে থাকবেন, আর নির্জনমেলার অগ্রনী ভূমিকায় অবদান রাখবেন। সবাইকে সাথে থাকার জন্য আন্তরিক কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। বি:দ্র: সকল পুরাতন ও নুতন সদস্যদের আবারো ফোরামে নুতন করে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। সেক্ষেত্রে পুরাতন সদস্যরা তাদের পুরাতন আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন।

বোন ই হলো আদরের বউ

Ariana

Ariana

Exclusive Writer
Story Writer
Joined
Mar 10, 2020
Threads
4
Messages
204
Credits
6,050
বোন ই হলো আদরের বউ পার্ট ১ (লেখিকা আরিয়ানা)

আমি অর্কো আমার বয়স ২৬ বছর ,আমি পড়ালেখা শেষ করে একটি কর্পোরেট অফিসে জব করছি।
আমার বাড়ি সিলেট আমি থাকি ঢাকা। আমার ফ্যামিলিতে আমি, বাবা,মা আর ছোট বোন অর্নি। ওর বয়স ১৭ ও এই বছর এইসএসসি দিবে। বাবা বিজনেস করেন আর মা গৃহিনি।
এইবার আসি আসল কথায়, আমার সামনে ইদের ছুটি তাই বাড়ি যাওয়ার প্রস্তুতি নিলাম,সবার জন্য কেনাকাটা করলাম, বোনের জন্য দুইটা থ্রি-পিস ও একটা সুন্দর বোরকা কিনলাম।
তো কেনা কাটা শেষ ট্রেনের টিকিট আগেই কাটা ছিল তাই ইদের ৩ দিন আগেই বাড়ি রওনা দিলাম।
ও একটা কথা আমি প্রায় ১ বছর পর বাড়ি যাচ্ছি, চাকরিতে জয়েন হওয়ার পর আর বাড়ি যাওয়া হয়নি।তাই সবার জন্যই কম বেশি কেনা কাটা করেছি,বিশেষ করে আমার আদরের ছোট বোন অর্নির জন্য।দির্ঘ ৫ ঘন্টা জার্নি করে অবশেষে বাড়ি পৌছালাম।কারন সিলেট শহর থেকে অনেক ভিতরে গ্রামে আমাদের বাড়ি।বাড়ি পৌছাতে প্রায় রাত ১০ টা বেজে গেল,বাড়ি গিয়ে দেখি সবাই ঘুমিয়ে গেছে,আম্মুকে ডেকে তুল্লাম তারপর খাওয়া শেষ করে আমিও ঘুমিয়ে গেলাম,অনেক রাত তাই আর অর্নিকে ডাকলাম না।সকাল ৬ টায় দেখি ছোট বেন অর্নি ডাকাডাকি শুরু করছে,রুমের দরজা খোলায় ছিল তাই ও বিছানাট পাশে গিয়েই ডাকছে,ও ডাকছে আর বলছে ভাইয়া আমার গিফ্ট কোথায়,আমি ঘুম ঘুম চোখে বলছি যা এখন পরে নিস এখন ঘুমাতে দেতো,কিন্তু ও নাছোরবান্দা ও গিফ্ট না নিয়ে যাবেইনা,তাই আমার গায়ের কাথা ধরে টান দিয়ে কাথা নিয়ে গেছে আমি লাফ দিয়ে উঠে দেখি আমার পড়নে লুংগি ও নাই,আমার তো লজ্জায় অবস্থা খারাপ,আর এদিকে ও খিলখিল করে হাসছে আমাকে নেংটু দেখে,আমি তাড়াহুড়া করে বিছানার পাশ থেকে লুঙ্গি নিয়ে পড়লাম, আর ভাল করে ওর দিকে তাকালাম ওকে যেন আমি চিনতেই পরছিনা ও এই একবছরে এতে বড় হয়ে গেছে একেবারে অচেনা লাগছে,আর রুপ যৌবন যেন উপচে পড়ছে,আমি একদেনে আমার আদরের বোনকে দেখছি যেন অচেনা এক পরী আমার ঘরে এসেছে, শেষে ওর ডাকে আমার ধ্যান ভাংলো,

অর্নি ঃ এই ভাইয়া কি দেখছিস অমন করে আমি অর্নি তোর বোন মনে হচ্ছে আমাকে কোনদিন দেখিসনি?
আমিঃ ওহ হ্যা আসলে তুই তো অনেক বড় হয়ে গেছিস তোকে তো চেনাই পাচ্ছেনা।
অর্নিঃ তুই আমাকে পরে মন ভরে দেখিস আগে আমর জন্য কি এনেছিস তাই দেখা,
আমিঃ ওহ দিচ্চি দাড়া এই বলে আলমারি থেকে ওর জামা আর বোরকাটা ওকে দিলাম,ও তো মহা খুশি খুশি তে আমাকে জড়িয়ে ধরলো ওর বুকের স্পর্শে আমার তো অবস্থা খারাপ।
ওকে তাড়াতাড়ি ছেড়ে দিয়ে বাথরুমে গেলাম ফ্রেস হতে।

চলবে..............
 
Last edited:
Top